ইনজুরি আর বেটিং বিতর্কের সুযোগে ফের অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ?

বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি দলের অধিনায়ক কে হবেন- এটা নিয়ে গত দুই সপ্তাহ ধরেই চলছে জল্পনা। মাহমুদউল্লাহকে সরিয়ে নুরুল হাসান সোহানকে জিম্বাবুয়ে সফরের অধিনায়ক করা হয়। সেই সোহান পড়েন ইনজুরিতে। এরপর গত বৃহস্পতিবার বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন চারজন সম্ভাব্য অধিনায়কের কথা বলেন।

সেই চারজনের মধ্যে সোহান ছাড়া লিটন কুমার দাসও পড়েছেন ইনজুরিতে। এশিয়া কাপের দল ঘোষণা নিয়েই এখন বিপাকে পড়ে গেছে বিসিবি।

এ মাসের ২৭ তারিখ থেকে শুরু হবে এশিয়া কাপ। আগামী সোমবার দল ঘোষণার শেষ দিন। কিন্তু অধিনায়ক ঠিক করতে না পারায় এবং একের পর এক ক্রিকেটার ইনজুরিতে পড়ায় দল নির্বাচন নিয়েই বিপদে পড়েছেন নির্বাচকেরা। সম্ভাব্য অধিনায়ক হিসেবে চারজনের শর্টলিস্টে আছেন সাবেক অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহও। যিনি ইদানিং পারফর্ম করতে পারছেন না। এছাড়া আছেন সাকিব আছ হাসান, যিনি এই মুহূর্তে একটি বেটিং কম্পানির সহযোগী প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি করে তদন্তের মুখে আছেন।

বিসিবি সূত্রে জানা গেছে, এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিল আরও দুই দিন সময় দিয়েছে দল ঘোষণার জন্য। আগামী বৃহস্পতিবার নাগাদ এশিয়া কাপের দল ঘোষণা করতে পারে বিসিবি। এদিকে লিটন দাস ছিটকে গেছেন ৩-৪ সপ্তাহের জন্য। সোহানকে চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুর পাঠানোর কথা ভাবা হচ্ছে। সাকিব আল হাসানের সেই চুক্তি নিয়ে তদন্ত করছে বিসিবি। এসব কারণে দেশের ক্রিকেটাঙ্গনের একাংশ মনে করছেন, মাহমুদউল্লাহই হয়তো আবারও নেতৃত্বভার পেতে যাচ্ছেন। গত এক মাসে বেশ কিছু সিদ্ধান্তে ‘চমক’ দিয়েছে বিসিবি। এবার তারা কী ‘চমক’ দেয়, সেটাই দেখার।

Leave a Reply

Your email address will not be published.